আন্তর্জাতিক

গঞ্জালেজ এবার নেইমারকে ‘আবর্জনা’ বললেন

গত সেপ্টেম্বরে লিগ ওয়ানে অলিম্পিক মার্শেইর কাছে ১-০ গোলে হেরেছিল প্যারিস সেন্ট জার্মেই। ওই ম্যাচে প্রতিপক্ষ ডিফেন্ডার আলভারো গঞ্জালেজকে থাপ্পড় মেরে লাল কার্ড দেখেন নেইমার। ম্যাচ শেষেও দুজনের ক্ষোভের আগুন জ্বলতে থাকে; যা এখনো নেভেনি।

চার মাস পর বুধবার আবারও মুখোমুখি হয় পিএসজি-মার্শেই। এবার অবশ্য শেষ হাসি নেইমারদেরই। ২-১ গোলের জয়ে ফরাসি সুপার কাপের শিরোপা ঘরে তোলে তারা।

ট্রফি জেতার পর নেইমার স্প্যানিশ ডিফেন্ডারকে খোঁচা দিয়ে একটি ছবি টুইট করেন। মুখ বুজে থাকেননি গঞ্জালেজ। নেইমারকে ‘আবর্জনা’ বলেন তিনি।

ইনজুরিতে পড়ে একমাস মাঠের বাইরে থাকার পর ম্যাচের ৬৫ মিনিটে বদলি হিসেবে মাঠে নামেন নেইমার। পেনাল্টি থেকে একটি গোলও করেন। ম্যাচে ব্রাজিলিয়ান তারকাকে কয়েকবার ফাউল করেন গঞ্জালেজ। মাঠে নিজের ওপর নিয়ন্ত্রণ রাখতে পারলেও ম্যাচ শেষে গঞ্জালেজকে উদ্দেশ্য করে একটি ছবি পোস্ট করেন নেইমার। জবাব দেন মার্শেই ডিফেন্ডার। তার টুইট, ‘আমার বাবা মা সবসময় আমাকে আবর্জনা ফেলে দিতে শিখিয়েছেন।’

এদিকে নিজের কোচিং ক্যারিয়ারের সম্ভবত সেরা রাতটা উদযাপন করেছেন প্যারিস সেন্ট জার্মেইর নতুন কোচ মৌরিসিও পচেত্তিনো। ক্যারিয়ারে চার বছর এস্পানিওল, ১৬ মাস সাউদাম্পটনএবং সারে ৫ বছর টটেনহ্যামে কাটিয়েও শিরোপার মুখ দেখেননি এই আর্জেন্টাইন। নিজের সাবেক ক্লাব পিএসজিতে কোচ হিসেবে যাত্রা শুরুর তৃতীয় ম্যাচেই পেলেন সবচেয়ে দামি উপহার। প্রথমবারের মত কোচ হিসেবে কোন আসরের শিরোপা জিতলেন কোন ক্লাবের হয়ে।

শিরোপা জয়ের পর নতুন কোচের প্রশংসা শোনা যায় নেইমারের মুখে।

‘নতুন কোচ নতুন দর্শন নিয়ে এসেছেন। মৌসুমের মাঝে নিজেদের পরিবর্তন করা সবসময় সহজ না। তবে পচেত্তিনো ব্যতিক্রম কোচ। সে খেলোয়াড়দের সঙ্গে অনেক কথা বলে এবং কি চান সেটা ভালোভাবে বুঝিয়ে দেয়।’ বলছিলেন নেইমার।

বিদায়ী কোচ থমাস টাচেলকেও ধন্যবাদ জানান তিনি। বলেন, ‘আমরা টাচেলকেও ধন্যবাদ জানায় এখানে সে যা কিছু করেছে তারা জন্য। বিশেষ করে আমি তার অধীনে অনেক উন্নতি করেছি এবং সে আমাকে নতুন লেভেলের ফুটবল দেখিয়েছে যেটা আমি প্রত্যাশাও করিনি।’

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button