হাই অ্যালার্ট জারি, সীমান্তে যু’দ্ধের প্রস্তুতি নিচ্ছে চিন-ভা’রত

আন্তর্জাতিক

চলমান উত্তে’জনার মধ্যে ভা’রতীয় সে’নাবাহিনীতে হাই অ্যালার্ট জারি করেছে সরকার। সীমা'ন্তের কাছে যু’'দ্ধের জন্য প্রস্তুত হচ্ছে বিমান বাইিনী। তারই মধ্যে গ্রাউন্ড জিরোতে দ্বিতীয় ফ্ল্যাগ মিটিংয়ের কথা রয়েছে আজ। এদিকে বিমান সে’না, নৌ সে’না এবং স্থলবাহিনীকে সবরকম পরিস্থিতি মোকাবিলার জন্য প্রস্তুত থাকতে বলেছেন মোদী সরকার। ভা’রত এবং চীনের প্রতিটি সীমা'ন্তেই অ’তিরিক্ত বাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে। নিয়ন্ত্রণরেখার খুব কাছে আরও বেশি সে’না নিয়োগ করা হয়েছে। সকলকেই অ’তি সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে।

অন্য দিকে ভা’রতের নৌসে’না প্রশান্ত মহাসাগর অঞ্চলে টহল বাড়িয়েছে। তারাও যে কোনও পরিস্থিতি মোকাবিলার জন্য প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছে। সোমবার রাতে লাদাখের ঘটনার পরে ভা’রত বা চীন কোনও দেশই সরাসরি যু’'দ্ধের কথা বলেনি। কিন্তু দুই দেশের বিবৃতিতেই উত্তে’জনা পারদ যথেষ্ট চড়া। তারই মধ্যে বুধবার লাদাখে ভা’রত এবং চীন সে’নার ফ্ল্যাগ বৈঠক ভেস্তে গিয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার ফের মেজর জেনারেল স্তরের বৈঠক হওয়ার কথা পেট্রোলিং পয়েন্ট ১৪ তে। সেখানেই সোমবার রাতে প্রায় আট' ঘণ্টা ধরে ভা’রত এবং চীনের সৈন্য সং'ঘা'তে জড়িয়ে পড়ে। যার জেরে ভা’রতের অন্তত ২০ জন সে’না নি’'হত হয়েছেন। চীনেরও বেশ কয়েক জন সে’না নি’'হত হয়েছেন বলে সূত্রের খবর। যদিও সরকারি ভাবে চীন এখনও কিছু জানায়নি।

সাম’রিক বিশেষজ্ঞদের অনেকেই বলছেন, এতজন সে’নার প্রা’ণহানি হওয়ার পরে এই মুহূর্তে সীমা'ন্তে উত্তে’জনা কমা কঠিন।দুই পক্ষের সে’নাই প্রতিশোধ নেওয়ার জন্য তৈরি হয়ে আছে। তবে আলোচনার রাস্তা খোলা থাকবে।

Facebook Comments