স্বাস্থ্য টিপস

কঠিন কোন রোগ শরীরে হয়েছে কিনা বুঝবেন যেভাবে

ধীরে ধীরে আমাদের অনেকের শরীরে কঠিন রোগ বাসা বাঁধে। বিভিন্ন উপসর্গ দেখে তা বোঝা যায়। জেনে নিন এমন কিছু লক্ষণ যা দেখে বুঝবেন আপনার শরীরে মরণব্যাধি বাসা বেঁধেছে।

টিপস হেলথ-টিপস চিকিৎসা

বিজ্ঞানীরা বলছেন, প্রতিদিন মলত্যাগের সময় একবার অন্তত মলের রঙ দেখুন। না হলে অজান্তেই বাসা বাঁধতে পারে মারণ রোগ, সেই সাথে চিকিৎসায় দেরি হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। মলের রঙই জানিয়ে দেয়, শরীরে কোনও রোগ বাসা বাঁধছে কি না। বিশেষ করে কোলন ক্যান্সার বা রেক্টাল ক্যান্সার। জানাচ্ছেন ব্রিটেনের বিখ্যাত চিকিত্সা বিজ্ঞানীরা।
বিজ্ঞানীরা বলছেন, প্রতিদিন মলত্যাগের সময় একবার অন্তত মলের রঙ দেখুন। না হলে অজান্তেই বাসা বাঁধতে পারে মারণ রোগ, সেই সাথে চিকিৎসায় দেরি হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। মলের রঙই জানিয়ে দেয়, শরীরে কোনও রোগ বাসা বাঁধছে কি না। বিশেষ করে কোলন ক্যান্সার বা রেক্টাল ক্যান্সার। জানাচ্ছেন ব্রিটেনের বিখ্যাত চিকিত্সা বিজ্ঞানীরা।

ব্রিটেনে সবচেয়ে বেশি মানুষ আক্রান্ত কোলন ক্যান্সারেই। বিশেষ করে এই ধরনের ক্যান্সার হয় ৬০ বছর বা তার বেশি বয়সের মানুষদের।
ব্রিটেনে সবচেয়ে বেশি মানুষ আক্রান্ত কোলন ক্যান্সারেই। বিশেষ করে এই ধরনের ক্যান্সার হয় ৬০ বছর বা তার বেশি বয়সের মানুষদের।

চিকিৎসকরা বলছেন, কোনোদিন যদি মলের সঙ্গে রক্ত বেরোয়, তা হলে দেরি না করে ডাক্তারের কাছে যান। বিশেষ করে সেই রক্তের রঙ যদি গাঢ় হয়, তা হলে চিন্তার বিষয়।
চিকিৎসকরা বলছেন, কোনোদিন যদি মলের সঙ্গে রক্ত বেরোয়, তা হলে দেরি না করে ডাক্তারের কাছে যান। বিশেষ করে সেই রক্তের রঙ যদি গাঢ় হয়, তা হলে চিন্তার বিষয়।

পাইলস হলে মলের সঙ্গে যে রক্ত বেরোয়, তা বাদামি রঙের হয়। কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যা থেকেও এই ধরনের রোগ হয়। পাইলস হলে মলের সঙ্গে যে রক্ত বেরোয়, তা বাদামি রঙের হয়। কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যা থেকেও এই ধরনের রোগ হয়।
পাইলস হলে মলের সঙ্গে যে রক্ত বেরোয়, তা বাদামি রঙের হয়। কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যা থেকেও এই ধরনের রোগ হয়। পাইলস হলে মলের সঙ্গে যে রক্ত বেরোয়, তা বাদামি রঙের হয়। কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যা থেকেও এই ধরনের রোগ হয়।

চিকিৎসকরা বলছেন, মলের রঙ যদি কালো বা গাঢ় বাদামি হয়, তা হলে রীতিমতো উদ্বেগের। সে ক্ষেত্রে তা ক্যান্সার বাসা বাঁধারই লক্ষণ। কোলন ক্যান্সার হলে খাওয়ার সময় তলপেটে ব্যথা হয়।
চিকিৎসকরা বলছেন, মলের রঙ যদি কালো বা গাঢ় বাদামি হয়, তা হলে রীতিমতো উদ্বেগের। সে ক্ষেত্রে তা ক্যান্সার বাসা বাঁধারই লক্ষণ। কোলন ক্যান্সার হলে খাওয়ার সময় তলপেটে ব্যথা হয়।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button