এই ৫০ জন থেকেই গঠন করা হবে নির্বাচন কমিশন

নির্বাচন কমিশনার ও অন্যান্য নির্বাচন কমিশনার নিয়োগে উপযুক্ত ১০ জন ব্যক্তির সন্ধানে সার্চ কমিটির অনুসন্ধান অব্যাহত রয়েছে।ইতিমধ্যে নির্বাচন কমিশন (ইসি) গঠনের জন্য বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, ব্যক্তি ও পেশাজীবীদের কাছ থেকে পাওয়া তিন শতাধিক ব্যক্তির মধ্যে প্রাথমিকভাবে ৫০ জনকে বাছাই করা হয়েছে। এখন তাদের জীবনবৃত্তান্ত এবং অতীতের কর্মকাণ্ড খতিয়ে দেখা হবে।

আগামী শনিবার এই তালিকা নিয়ে আবারও বৈঠকে বসবে তারা। বৈঠক সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

সুপ্রিম কোর্টের জাজেস লাউঞ্জে গতকাল বিকাল পৌনে ৫টায় শুরু হয়ে রাত পৌনে ৮টা পর্যন্ত চলে এ বৈঠক। বৈঠকে রাজনৈতিক দল, পেশাজীবী সংগঠন, ব্যক্তিগত পর্যায় এবং বিশিষ্টজনদের কাছ থেকে পাওয়া নামের তালিকা উপস্থাপন করা হয়।

বৈঠক সূত্র জানায়, প্রস্তাবিত ৩২২ জনের তালিকা থেকে একাধিকবার আসা নাম বাদ দেওয়ার পর সংখ্যা দাঁড়ায় ৩১৫ জনে। নামের বানানে থাকা ভুলগুলোও সংশোধন করা হয়েছে।

সূত্রটি আরও জানায়, এ তালিকা থেকে সার্চ কমিটি প্রাথমিকভাবে ৫০ জনকে বাছাই করেছে। এখন এই ৫০ জনের জীবনবৃত্তান্ত পর্যালোচনা করা হবে। তাদের মধ্যে যাদের পূর্ণাঙ্গ জীবনবৃত্তান্ত পাওয়া যায়নি, তাদের বিষয়ে পূর্ণাঙ্গ তথ্য সংগ্রহ করা হবে। তালিকার বাইরেও যদি উপযুক্ত কোনো ব্যক্তির বিষয়ে তথ্য থাকে, সে বিষয়ে বিস্তারিত জানাতে কমিটির সদস্যদের অনুরোধ জানিয়েছেন সার্চ কমিটির প্রধান।

সার্চ কমিটির প্রধান বিচারপতি ওবায়দুল হাসানের সভাপতিত্বে বৈঠকে আরও উপস্থিত ছিলেন কমিটির সদস্য হাই কোর্ট বিভাগের বিচারপতি এস এম কুদ্দুস জামান, মহাহিসাব নিয়ন্ত্রক ও নিরীক্ষক (সিএজি) মুসলিম চৌধুরী, সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি) চেয়ারম্যান সোহরাব হোসাইন, সাবেক নির্বাচন কমিশনার মুহাম্মদ ছহুল হোসাইন ও কথাসাহিত্যিক অধ্যাপক আনোয়ারা সৈয়দ হক।