অবশেষে অস্ত্রবিরতির ঘোষণা দিয়েছে রাশিয়া

সাময়িক অস্ত্রবিরতির ঘোষণা দিয়েছে রাশিয়া। কিছুক্ষণের মধ্যে তা কার্যকর হবে বলে জানা গেছে। শনিবার স্থানীয় সময় সকাল ১০টা (বাংলাদেশ সময় দুপুর ২টা) থেকে এই সিদ্ধান্ত কার্যকর হওয়ার ঘোষণা দিয়েছে রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়। ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসি এ তথ্য নিশ্চিত করেছে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ‘হিউম্যান করিডোর’ হিসেবে বেসামরিক লোকদের সরিয়ে নেওয়ার সুযোগ দেওয়ার বিষয়ে ইউক্রেনীয় কর্তৃপক্ষের সঙ্গে একমত হয়েছে রাশিয়া। সূত্র: বিবিসি

ইউক্রেনের দুটি শহর থেকে বেসামরিক নাগরিকদের বের হয়ে যাওয়ার সুযোগ দিয়েছে রাশিয়া। এরফলে সাময়িকভাবে ইউক্রেনের দুই শহর মারিউপোল ও ভলনোভাখায় আক্রমণ বন্ধ রাখবে দেশটি। মস্কো সময় সকাল ১০টা থেকে এই যুদ্ধবিরতি কার্যকর থাকবে।

বিবৃতিতে বলা হয়, শহর দুটিতে থাকা বেসামরিক মানুষদের বেড়িয়ে যাওয়ার জন্য ‘রেজিম অব কোয়াইটনেস’ কার্যকর করা হবে। তবে এখনো ইউক্রেনের পক্ষ থেকে পাল্টা হামলা না চালানোর কোনো নিশ্চয়তা এখনো দেয়া হয়নি। যদিও মারিউপোলের মেয়র ভাদিম বইচেঙ্কোই প্রথম আহবান জানিয়ে বলেছিলেন যাতে বেসামরিক নাগরিকদের শহর ত্যাগের সুযোগ দেয়া হয়। ওই শহর দুটি ঘিরে রেখেছে রাশিয়ার বাহিনী।

উল্লেখ্য, গত বৃহস্পতিবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট পুতিনের সামরিক অভিযান ঘোষণার কয়েক মিনিট পরেই ইউক্রেনে বোমা ও ক্ষেপণাস্ত্র হামলা শুরু করে রুশ সেনারা। এরপর থেকে ইউক্রেন ও রাশিয়ার মধ্যে যুদ্ধ চলছে। ইউক্রেন দাবি করেছে, যুদ্ধে এখন পর্যন্ত ইউক্রেনের দুই হাজারের বেশি বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছেন। যদিও নিহতের নির্দিষ্ট সংখ্যা জানায়নি তারা। এ ছাড়া রাশিয়ার ৯ হাজার ১৬৬ সৈন্য নিহত হয়েছেন বলে দাবি ইউক্রেনের।