বিশ্বের ২জন নেতাই পারেন পুতিন কে থামাতে একজন হলেন এরদোয়ানঃওয়াশিংটন পোস্ট জানিয়েছে

মার্কিন গণমাধ্যম ওয়াশিংটন পোস্ট জানিয়েছে, এরদোগান সফল হলে ইউক্রেনে যুদ্ধ থামবে। কারণ, ইউক্রেন যুদ্ধ থামাতে পুতিনকে রাজি করতে পারবেন মাত্র দু’জন রাষ্ট্রনায়ক। এ দু’রাষ্ট্রনায়কের একজন হলেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান। মঙ্গলবার এমন সংবাদ প্রকাশ করেছে ইয়েনি শাফাক।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রভাবশালী গণমাধ্যম ওয়াশিংটন পোস্টের প্রতিবেদন অনুসারে, বিশ্বের দু’জন রাষ্ট্রনায়কের পক্ষেই কেবল পুতিনকে বোঝানো সম্ভব। এ দু’নেতা হলেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান ও ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী নাফতালি বেনেট। এ দু’জন নেতাকে পুতিন বিশ্বাস করেন বলে দাবি করেছে ওয়াশিংটন পোস্ট। এ দু’নেতার মধ্যস্থতায় ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি ও রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট পুতিন একসাথে বসে আলোচনার মাধ্যমে সমস্যার সমাধান করতে পারেন এবং ইউক্রেনের ভয়াবহ যুদ্ধ বন্ধ হতে পারে।

যদিও তুরস্ক হলো ন্যাটা সদস্য এবং ইসরাইল হলো যুক্তরাষ্ট্রের বন্ধুরাষ্ট্র। রোববার তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান এক বিবৃতিতে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট পুতিনকে যুদ্ধবিরতির আহবান জানান। এছাড়া ইউক্রেনে মানবিক সঙ্কট নিরসনে করিডোর খোলা ও শান্তিচুক্তির আহবান জানান। এদিকে ইউক্রেন সঙ্কট নিয়ে তুরস্ক একটি ক‚টনীতিক সম্মেলন আয়োজন করেছে।

শুক্রবারের ওই ক‚টনীতিক সভায় রাশিয়া ও ইউক্রেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রীরাও যোগ দিবেন। এসব কারণে ওয়াশিংটন পোস্ট মনে করে, তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগানকে পুতিন বিশ্বাস করেন। সম্ভবত রাশিয়ার প্রেসিডেন্টকে যুদ্ধবিরতিতে সম্মত করতে পারবেন তুরস্কের এ জনপ্রিয় রাষ্ট্রনায়ক। কাজেই এরদোগান সফল হলে ইউক্রেনে যুদ্ধ থামবে। ইয়েনি শাফাক।